মঙ্গলবার, ২ জুন ২০২০ খ্রীষ্টাব্দ | ১৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন

ফেঞ্চুগঞ্জে নুরুল, মুরাদ, সেলিনা বিজয়ী



পঞ্চম উপজেলা পরিষদের দ্বিতীয় ধাপে সোমবার (১৮ মার্চ) সিলেটের ফেঞ্চুগঞ্জে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকাল ৮ থেকে বিকেল ৪ টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ চলে। নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে নুরুল ইসলাম, ভাইস চেয়ারম্যান পদে জাহিরুল ইসলাম মুরাদ ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে সেলিনা ইয়াসমিন বেসরকারীভাবে বিজয়ী ঘোষিত হয়েছেন। তবে দীর্ঘ ১০ বছর পর নির্বাচন অনুষ্ঠিত হলেও ভোটারদের উপস্থিতি ছিল কম। সকালের দিকে ভোট কেন্দ্রগুলোতে ভোটার উপস্থিতি থাকলেও দুপুরের পর প্রায় ভোটার শূন্য হয়ে যায় বেশ কিছু ভোট কেন্দ্র।

নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা যায় ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলায় মোট ভোটার ৭২,৬৫৪ জন। উপজেলার পাঁচ ইউনিয়নের ৩৬টি সেন্টারে ভোটাররা ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন। নির্বাচেন বেসরকারীভাবে ঘোষিত ফলাফলে চেয়ারম্যান পদে কাপ পিরিছ প্রতিক নিয়ে নুরুল ইসলাম ১২,৮৬৯ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী দোয়াত কলম প্রতিক নিয়ে ওয়াহিদুজ্জাম সুফি পেয়েছেন ৬,৬৮৭ ভোট।

ভাইসচেয়ারম্যান পদে পুরুষ প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন ৭জন। তার মধ্যে জাহিরুল ইসলাম মুরাদ ৯,৫৫৩ ভোট পেয়ে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মো. সাহাদ মিয়া পেয়েছেন ৮,৮০৪ ভোট।

মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে সেলিনা ইয়াসমিন ফুটবল প্রতিক নিয়ে ১৪,৮৬৯ পেয়ে বেসরকারীভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মোহিনী বেগম পেয়েছেন ৯,৩০৪ ভোট।

এদিকে নির্বাচনকে অবাধ সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ করতে সর্বোচ্চ সতর্কবস্থায় ছিল পুলিশ। নির্বাচনকে ঘিরে উপজেলায় বিজিবি ও অতিরিক্ত পুলিশ সদস্য মোতায়েন করা হয়েছিল।

নির্বাচন কমিশন সূত্র জানায়, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৭ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে ৪জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।

Print Friendly, PDF & Email
শেয়ার করুন: