রবিবার, ২৬ জুন ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১২ আষাঢ় ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

গহরপুর আব্দুল মতিন মহিলা একাডেমিতে শাহনূর চৌধুরী মেধাবৃত্তির সনদ প্রদান



বালাগঞ্জের গহরপুর আব্দুল মতিন মহিলা একাডেমির গরীব এবং মেধাবী শিক্ষার্থীদের মধ্যে ষষ্ঠ শাহনূর চৌধুরী মেধাবৃত্তির সনদ ও বৃত্তি প্রদান সম্পন্ন হয়েছে। ১৩ জানুয়ারি (রোববার) দুপুরে আনুষ্ঠানিকভাবে একাডেমির ৬ষ্ঠ থেকে দশম শ্রেণির ১৫জন ছাত্রীকে বৃত্তির নগদ অর্থ ও সনদ প্রদান করা হয়।

এ উপলক্ষে একাডেমি হলরুমে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাজ্যের লন্ডন বারাহ অফ বার্কিং এন্ড ডেগেনহামের কাউন্সিলর মো. সদরুজ্জামান খাঁন। তিনি বলেন, দেশের শিক্ষা ও সামাজিক উন্নয়নের ব্যাপারে সরকারের পাশাপাশি বিত্তবান, গুণীজনদের এগিয়ে আসতে হবে। উন্নত জাতি হিসেবে প্রতিষ্ঠাতা পেতে নিজ নিজ অবস্থান থেকে সকলকে আন্তরিক চেষ্টা চালিয়ে যেতে হবে। কারণ শিক্ষা ছাড়া আগামীদিনে ঠিকে থাকার কোন সুযোগ নেই। তিনি নারী শিক্ষার উন্নয়নে আব্দুল মতিন মহিলা একাডেমি প্রতিষ্ঠার জন্য একাডেমির প্রতিষ্ঠাতা যুক্তরাজ্য প্রবাসী আব্দুল মতিন এবং বৃত্তিদাতা গুণীজন শাহনূর চৌধুরীর প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন একাডেমি পরিচালনা কমিটির সদস্য মো. গোলাম মোস্তফা। একাডেমির শিক্ষার্থী মাহবুবা খানম লুবনা ও নওশিন আঞ্জুম নাবিলার যৌথ পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন দৈনিক জালালাবাদের চীফ রিপোর্টার আহবাব মোস্তফা খাঁন, বালাগঞ্জ উপজেলার প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক মো. জিল্লুর রহমান জিলু, সহ-সাধারণ সম্পাদক এমএ
কাদির, অর্থ সম্পাদক এসএম হেলাল, শিক্ষানুরাগী আব্দুল মালিক, রায়হান চৌধুরী হৃদয়, হাফিজ আব্দুল জলিল, একাডেমির ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক জুবের আহমদ, শিক্ষক মাহবুবুল ইসলাম, সাবেক শিক্ষক মো. ইব্রাহিম ফরহাদ, শিক্ষার্থী মাহবুবা মারজানা আরফিন প্রমূখ। অনুষ্ঠানে মানপত্র পাঠ করেন শিক্ষার্থী জান্নাতুল ফেরদৌসি।

অনুষ্ঠানে ২০১৮ সালের বৃত্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীরা হচ্ছে রুহি বেগম, সাদেকা আক্তার লিপি ও মাসুমা বেগম ষষ্ঠ শ্রেণি, আবিদা খাতুন জাকিয়া, মাহিয়া বেগম ও আয়শা আক্তার শিপা সপ্তম শ্রেণি, উম্মে কুলসুম মাহি, সাম্মি বেগম ও সুমা বেগম অষ্টম শ্রেণি, মারজানা আরফিন সাজেদা, তাহমিদা আক্তার তারিন ও লিজা বেগম নবম শ্রেণি, হামিদা বেগম, খাদিজা আক্তার লিজা ও ইমা বেগম দশম শ্রেণি।

উল্লেখ্য, বৃত্তির প্রবর্তক শাহনূর চৌধুরী বঙ্গবীর এমএ জি ওসমানী মন্ত্রী থাকাকালে তাঁর এপিএস ছিলেন। তিনি বর্তমানে স্কটল্যান্ডে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন। শাহনূর চৌধুরী তাঁর ব্যক্তিগত উদ্যোগে এলাকার বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে গরীব এবং মেধাবী শিক্ষার্থীকে বৃত্তি প্রদান করে আসছেন।

শেয়ার করুন:

প্রিন্ট করুন প্রিন্ট করুন

error: Content is protected !!